আনোয়ারায় জমি-জমা নিয়ে বিরোধের জেরে সংঘর্ষ

প্রকাশ: ২০২০-০৫-২২ ০৮:১৭:৩৪ 122 Views

ডেস্ক নিউজঃচট্টগ্রামের আনয়ারার বারশত ইউনিয়নে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে দুপক্ষের সংঘর্ষ হয়েছে।
শুক্রবার (১৬মে) সন্ধ্যা ৬টা ৪০মি. থেকে রাত ৮টা ৩০ মিনিট পর্যন্ত দুই দফায় থেমে থেমে চালিতাতলী গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।
জানা যায়, বাড়ির পাশে জায়গা নিয়ে ওই গ্রামের বেশ কয়েকজন প্রতিবেশীসহ গোষ্ঠীর মানুষের সাথে বেশ কিছুদিন ধরে বাদী প্রবাসী ইউশা আনোয়ার ও তার স্ত্রী আফরোজা সুলতানা রিমু’র পরিবারের সাথে বিরোধ চলছিল।যা ইতিমধ্যে মামলা হয়েছে যা বিজ্ঞ অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আদালত পর্যায়ে বিজ্ঞ বিচারকমন্ডলীর হাতে চলমান রয়েছে। বর্তমানে ওই জায়গা আফোরাজা সুলতানার পরিবার ভোগ দখল করে আসছে। কিন্তু প্রতিবেশীরা ওই জমির মালিকানা দাবি করে শনিবার ইফতারের পর হঠাৎ ১০/১৫ জন বহিরাগত লোক নিয়ে জমি ও জায়গা দখল করতে গেলে আফরোজা সুলতানার প্রবাসী স্বামী ইউশা আনোয়ারসহ তার পরিবারের লোকজন বাধা দেয়। এতে দুপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বেঁধে যায়।এক পর্যায়ে বিবাদী পক্ষ দেশীয় অস্ত্র নিয়ে বাদীর বসত ভিটায় ডুকে পরে ও ভাংচুর চালায়।উক্ত সংঘর্ষে বাদী পক্ষের আফরোজা ও ইউশা আহত হয়েছেন বলে জানান। তাদের উদ্ধার করে স্বজনরা আনোয়ারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। আহতদের মধ্যে ইসহাক এবং ইউশা নামের দুজন একটু বেশি আহত হন।

এই ব্যাপারে আফরোজা সুলতানা বাদী হয়ে ১০ জনকে বিবাদী করে আনোয়ারা থানায় একটি অভিযোগ করেন।তারা সবাই একই গ্রামের বাসিন্দা হন।

এ বিষয়ে বাদীর স্বামী ইউশা জানান,ইফতার করার পর পর তারা পুর্ব পরিকল্পনা নিয়ে হঠাৎ অতর্কিতভাবে ঝাপিয়ে পরে।চারদিকে চেঁচামিচিতে তারা আমার ঘরের আসবাবপত্র ভাংচুর চালায়।মানুষের উপস্থিতি টের পেয়ে তারা পালিয়ে যান।
তিনি আরো জানান,তারা আমাদের বাড়ির প্রধান ফটকের গেইট ভেঙ্গে ফেলেন।আমাদের অনেক ক্ষয় ক্ষতি হয়েছে।তাদের আমরা বার বার বলেছি,তারা আইনের সাথে আসুক,সমাজে বৈঠকে বসুক যদি তারা জায়গা পেলে আমরা দিয়ে দিব,আর না পেলে তারা আমাদের যেন মানসিক অত্যাচার যেন না করেন।ইতিমধ্যে বিজ্ঞ আদালতের একটি রায় আমাদের পক্ষে এসেছে অন্যটি চলমান রয়েছে।

এ বিষয়ে আনোয়ারা থানার পুলিশ বলেন, তারা উভয় একে অপরকে বাদী করা আমরা লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে, তদন্ত একবার হয়েছে, তদন্ত সাপেক্ষে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে।উভয় পক্ষকে বলা হয়েছে মহামারি করোনা অবস্থায় কোন ঝামেলা হলে তা প্রশাসন মেনে নিবে না।

ট্যাগ :



চেয়ারম্যান ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক : মোঃ আব্দুল আজিজ
ডিএমডি : মোঃ আরমান তারেক

বার্তা কক্ষ :

ঢাকা অফিস : ৬ষ্ঠ তলা,আইভরীকৃষ্ণচূড়া,৩/১ ই পুরানা পল্টন, ঢাকা-১০০০।
চট্টগ্রাম অফিস : সায়মা আবুল স্কয়ার,বড়পুল,হালিশহর,চট্টগ্রাম।
ফোন : ০১৮১৭-৭৪৩৩৮৭
মেইল : channelkornofuli.org@gmail.com